বঙ্গবন্ধুকে নিয়ে বেশ কিছু গ্রন্থ প্রকাশের উদ্যোগ

জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী উপলক্ষে বাংলা একাডেমি জাতির শ্রেষ্ঠ সন্তান ও স্বাধীনতার এই মহান স্থপতির ওপর বেশ কিছু উল্লেখযোগ্য গ্রন্থ প্রকাশের উদ্যোগ নিয়েছে।

এর মধ্যে উল্লেখযোগ্য প্রকাশনা হচ্ছে বঙ্গবন্ধুর জীবন ও সার্বিক কর্মের ওপর প্রামাণিক গ্রন্থ এবং একাডেমি প্রকাশিত জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ‘কারাগারের রোজনামচা’র ইংরেজি সংস্করণ প্রকাশ। প্রথমবারের মতো এই দুটি বই প্রকাশ করা হচ্ছে বলে একাডেমি সূত্রে জানা গেছে। খবর বাসসের।

এছাড়া এই কার্যক্রমের অংশ হিসেবে দেশের নতুন প্রজন্মের মানুষ যাতে স্বাধীনতার স্থপতির জীবন, কর্ম, তাঁর আন্দোলন-সংগ্রামের ইতিহাস সঠিকভাবে জানতে পারেন- সেই লক্ষ্যে শিশু-কিশোর উপযোগী বিভিন্ন বিষয়ে বই প্রকাশের কার্যক্রম গ্রহণ করা হয়েছে। এই পর্যায়ে কবি ও লেখকদের জাতিরজনকের ওপর লেখা নির্বাচিত কবিতা, ছড়া, গল্প পৃথক পৃথকভাবে প্রকাশ করা হবে। এসব প্রকাশনার জন্য ইতিমধ্যে একাডেমি কাজ শুরু করেছে বলে একাডেমীর সংশ্লিষ্ট বিভাগ সূত্র জানিয়েছে।

ইতিপূর্বে বাংলা এডাডেমি জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের লেখা এবং তাঁর ওপর বিভিন্ন লেখকের উল্লেখযোগ্য বেশ কয়েকটি বই প্রকাশ করে। প্রকাশিত বইয়ের মধ্যে বঙ্গন্ধুর নিজের লেখা ‘কারাগারের রোজনামচা’ তাঁর জ্যেষ্ঠ কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সার্বিক তত্ত্বাবধানে প্রকাশ করে একাডেমি। এ বইটিসহ বঙ্গবন্ধুর ওপর একাকাডেমি প্রকাশিত বিভিন্ন বই দেশ-বিদেশের পাঠকদেও কাছে বিপুলভাবে গ্রহণযোগ্যতা পেয়েছে।

সূত্র জানায়, এ ছাড়া বিভিন্ন লেখকের প্রকাশিত বইয়ের মধ্যে রয়েছে শামসুজ্জামান খানের সম্পাদনায় ‘সাতই মার্চের ভাষণ: বহুমাত্রিক বিশ্লেষণ।’ এই বইটিতে ঐতিহাসিক সাতই মার্চের ভাষণের নানা দিক নিয়ে আলোচনা করা হয়েছে। আমাদের মহান স্বাধীনতা সংগ্রামে বঙ্গবন্ধুর এই ভাষণকে বইটিতে অসাধারণ একটি দলিল হিসেবে মূল্যায়ন করা হয়।

মোনায়েম সরকার সম্পাদিত ‘বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান: জীবন ও কর্ম’ বইটি দুই খণ্ডে প্রকাশ করা হয়। এ দু’টি খণ্ডে বঙ্গবন্ধুর শৈশবকাল ব্রিটিশ ভারতবর্ষ, শিশু-তরুণ মুজিব, বিশ ও তিরিশ দশকের রাজনীতির ধারা, ব্রিটিশবিরোধী আন্দোলন, পাকিস্তানের স্বপ্ন ও যুবক মুজিবের মানসগঠন, ছাত্র ও যুব আন্দোলনে কর্মধারা, ভাষা আন্দোলন, কারাজীবন (১৯৪৯-৫২), আওয়ামী মুসলিম লীগ প্রতিষ্ঠা, গণপরিষদে নেতৃত্ব, আইয়ুববিরোধী আন্দোলন, ভাষণ (১৯৫৫-৫৮), গণ-অভ্যূত্থানে ভূমিকা, ১৯৭০ সালের নির্বাচন, ১৯৭১ সালের অসহযোগ আন্দোলন, মুক্তিযুদ্ধে বঙ্গবন্ধুর নেতৃত্ব, পাকিস্তানের কারাগারে বঙ্গবন্ধু, স্বদেশ প্রত্যাবর্তন, ১৯৭২-৭৫ জাতিগঠন, দেশ-বিদেশের দলিল-দস্তাবেজ, সাময়িকী, সংবাদপত্র, পূর্ববঙ্গ আইনসভা, পাকিস্তান জাতীয় পরিষদ, বাংলাদেশ গণপরিষদ, জাতীয় সংসদের কার্যবিবরণী, সাক্ষাৎকার, স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়, পুলিশের গোপন দলিলপত্র। বইয়ের প্রথম খণ্ডে স্বনামধন্য কয়েকজন লেখকের বঙ্গবন্ধুকে নিয়ে লেখা বেশ কয়েকটি মূল্যায়নধর্মী প্রবন্ধ রয়েছে।

বাংলা একাডেমি প্রকাশিত অন্যান্য বইগুলো হচ্ছে মাহবুব তালুকদারের ‘খোকা থেকে শেখ মুজিব।’ সৈয়দ শামসুল হকের ‘বঙ্গবন্ধুর বীরগাঁথা।’ এই বইটিতে জাতিরজনকের জীবন কর্মের ওপর বিশদ বিবরন তুলে ধরেছেন সব্যসাচী লেখক সৈয়দ শামসুল হক। শামসুজ্জামান খান সম্পাদিত ‘বঙ্গবন্ধু নানা বর্ণে নানা রেখায়’ এবং ‘বঙ্গবন্ধু স্মারকগ্রন্থ’ বই দুটিতেও বঙ্গবন্ধুর বিভিন্ন কর্ম নিয়ে আলোকপাত করা হয়। স্মারকগ্রন্থ একটি উল্লেখযোগ্য বই হিসেবে পাঠকমহলে সমাদৃত হয়।

বাংলা এডাডেমির মহাপরিচালক ড. শামসুজ্জামান খান বলেন, স্বাধীনতার স্থপতি জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী সামনে রেখে এডাডেমীর পক্ষ থেকে তাঁর ওপর নানা বিষয়ে প্রকাশনা ও কার্যক্রম গ্রহণ করা হয়েছে। এর অংশ হিসেবে ইতিমধ্যে বঙ্গবন্ধুর ‘কারাগারের রোজনামচা’ প্রকাশিত হয়। বইটি বিপুলভাবে সমাদৃত হয়। এ বইটির ইংরেজি সংস্করণ প্রকাশ করা হচ্ছে।

তিনি বলেন, এ ছাড়া দেশের নতুন প্রজন্ম যাতে বঙ্গবন্ধুর জীবনী, তাকে নিয়ে দেশের লেখক-কবি, গবেষক, সাহিত্যিকরা কিশোর উপযোগী যে সব কাজ করেছেন সেইসব রচনা একাডেমি থেকে ভিন্ন ভিন্নভাবে প্রকাশের কার্যক্রম আমরা গ্রহণ করেছি। তিনি জানান, আমাদের লেখকরা জাতির জনককে নিয়ে শিশু-কিশোর উপযোগী এ পর্যন্ত যে সব কবিতা, প্রবন্ধ ও ছড়া লিখেছেন, এগুলোর মধ্যে বিপুলসংখ্যক লেখায় সৃষ্টিশীলতা রয়েছে। এসব রচনা একাডেমি একসঙ্গে পাঠকদের কাছে তুলে ধরার চিন্তা থেকেই বই প্রকাশের পদক্ষেপ নেয়া হয়েছে।

একাডেমির পরিচালক ড. জালাল আহেমদ বলেন, এ পর্যন্ত একাডেমি বঙ্গবন্ধুর ওপর যে সব বই প্রকাশ করেছে, পাঠক ও বিক্রেতাদের চাহিদার পরিপ্রেক্ষিতে কোনো কোনো বই নতুন সংস্করণ করা হচ্ছে। ইতোমধ্যে কয়েকটি বই নতুন সংস্করণ করা হয়েছে। এই কার্যক্রম অব্যাহত থাকবে। -বাসস