সিলেট বিভাগীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষন অধিদপ্তরে জনবল সংকট তবুও সুফল পাচ্ছেন ভোক্তারা

মাহবুবুর রহমান চৌধুরী

জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষন অধিদপ্তরের  আওতাধীন সিলেট বিভাগীয় কার্য্যালয় ও ৪টি জেলা কার্য্যালয়ের প্রয়োজনীয় জনবল সংকট  থাকা সত্ত্বেও কার্য্যক্রম থেমে নেই। নিয়মিত বাজার মনিটরিং ও শতভাগ অভিযোগ নিষ্পত্তির ফলে সুফল পাচ্ছেন ভোক্তারা। অধিদপ্তরের  সিলেট বিভাগীয় কার্য্যালয় ও ৪টি জেলা কার্য্যালয়ের (সিলেট, সুনামগঞ্জ, মৌলভীবাজার, হবিগঞ্জ) মাধ্যমে ২০১৬-১৭ অর্থবছরে  অধিদপ্তরের মোবাইল টিম ৫২৫টি অভিযান পরিচালনা ও ৮২টি অভিযোগ নিস্পত্তি করে ৯১লক্ষ ২০ হাজার ৬শ ৫০ টাকা জরিমানা আরোপ করে তা আদায় করে। এর মধ্যে মোবাইল টিম জরিমানা আদায় করে ৮৭ লক্ষ ৪৮ হাজার ৬ শত ৫০ টাকা ।  হয়রানীর শিকার ভোক্তাদের ৮২টি অভিযোগ নিস্পত্তি করে জরিমানা আদায় করা হয় ৩ লক্ষ ৭২ হাজার টাকা এবং ২৫% হারে অভিযোগকারীগণকে ৮৪ হাজার ৭শত ৫০ টাকা প্রদান করা হয়েছে। ভোক্তা অধিকার আইন ২০০৯ অনুসারে কোন ক্রেতা / ভোক্তা  টাকার বিনিময়ে পন্য ও সেবা  গ্রহনে কোন ধরনের হয়রানী , প্রতারনার শিকার হলে এই আইনে প্রতিকার পেয়ে থাকেন। শুধু তাই নয় ভোক্তার অভিযোগ প্রমানিত হলে দোষী ব্যাক্তি বা প্রতিষ্ঠানের উপর যে জরিমানা আরোপ করা হয় তার শতকরা ২৫ ভাগ আইন অনুযায়ী পেয়ে থাকেন অভিযোগ কারী। সম্প্রতি সিলেটের দক্ষিন সুরমার আলমপুরে অবস্থিত ভোক্তা অধিকার সংরক্ষন অধিদপ্তরের  সিলেট বিভাগীয় কার্য্যালয়ে সরেজমিন পরিদর্শনে গেলে অভিযোগ করে প্রতিকার পাওয়া কয়েক জন ভোক্তা ও কার্য্যালয়ের কর্মকর্তাদের সাথে আলাপকালে এসব তথ্য পাওয়া গেছে।  অনুসন্ধানে জানাগেছে   প্রয়োজনীয় পদে জনবলের অনুমোদন নেই। অপরদিকে অনুমোদিত পদে নিয়োগ নেই । ফলে জনবল সংকট নিয়ে সিলেট জেলা কার্য্যালয়ের  সহকারী পরিচালক সুনমাগঞ্জ জেলা কার্য্যালয়ের অতিরিক্ত দায়ীত্ব পালন করছেন একই ভাবে মৌলভী বাজার জেলা কার্য্যালয়ের  সহকারী পরিচালক হবিগঞ্জ জেলা কার্য্যালয়ের  অতিরিক্ত দায়ীত্ব পালন করছেন।
প্রাপ্ত তথ্যে দেখা গেছে সিলেট বিভাগীয় কার্যালয়ে উপ-পরিচালক পদে ১জন, সহকারী পরিচালক পদে ১জন, নৈশ প্রহরী ১জন, ক্লিনার ১জন দায়ীত্ব পালন করছেন এর মধ্যে ১জন  সহকারী পরিচালকের পদ শুন্য রয়েছে। অফিস সহকারী ও অফিস সহায়ক পদ অনুমোদন না থাকায় নিয়োগ নেই।
সিলেট জেলা  কার্যালয়ে সহকারী পরিচালক পদে ১জন, অফিস সহকারী পদে ১জন  দায়ীত্ব পালন করছেন । সুনামগঞ্জ  জেলা  কার্যালয়ে সহকারী পরিচালক পদে ১জন ও অফিস সহকারী পদে ১জনের অনুমোদন থাকলেও পদগুলো শুন্য ।
মৌলভী বাজার জেলা  কার্যালয়ে সহকারী পরিচালক পদে ১জন দায়ীত্ব পালন করছেন তবে অফিস সহকারীর পদ শূন্য রয়েছে। হবিগঞ্জ জেলা কার্য্যালয়ে কোন পদেই নিয়োগ হয়নি। জেলা কার্য্যালয় গুলোতে অফিস  সহায়ক, নৈশ প্রহরী, ক্লিনার পদ অনুমোদন নেই ফলে দৈনন্দিন অফিসিয়াল কার্য্যক্রম এক প্রকার জোড়াতালি দিয়ে চালাতে হচ্ছে।
এদিকে ভোক্তা অধিকার বিরোধী কার্যকলাপ প্রতিরোধে এবং ভোক্তাদের অধিকার সংরক্ষণের লক্ষ্যে ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ আইন ২০০৯ অনুসারে সিলেট জেলার ১৩ টি উপজেলা এবং ১০৫ টি ইউনিয়নে ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ কমিটি গঠন করা হয়েছে । গত দুই বছরে সিলেট জেলা কার্যালয়ের মোবাইল টিম কর্তৃক ১০২ টি অভিযান পরিচালনা করে মোট ১৮ লক্ষ ১৭ হাজার ৭শত টাকা জরিমানা আরোপ ও আদায় করা হয়েছে। ২০টি অভিযোগ নিষ্পত্তিপূর্বক ৫১হাজার টাকা জরিমানা আরোপ ও আদায় করা হয়েছে এবং ২৫% হারে অভিযোগকারীগণকে ১২ হাজার ৭শত ৫০ টাকা প্রদান করা হয়েছে। অভিযোগ নিস্পত্তির হার শতভাগ। অপরদিকে সুনামগঞ্জ  জেলার ১১ টি উপজেলা এবং ৮৭ টি ইউনিয়নে ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ কমিটি গঠন করা হয়েছে । সুনামগঞ্জ জেলা কার্যালয়ের মোবাইল টিম কর্তৃক দুই বছলে ৭৫ টি অভিযান পরিচালনা করে মোট ১১ লক্ষ ৬৩ হাজার ২শত টাকা জরিমানা আরোপ ও আদায় করা হয়েছে।
যোগাযোগ করা হলে ভোক্তা অধিকার সংরক্ষন অধিদপ্তরর  সিলেট জেলা কার্য্যালয়ের সহকারী পরিচালক জাহাঙ্গীর আলম এ প্রতিবদেক জানান, সিলেট বিভাগের ভোক্তাসাধারণ তাদের অধিকার সম্পর্কে সচেতন নয়। আমরা জেলা কর্য্যালয় গুলোর মাধ্যমে অধিকার বঞ্চিত ভোক্তাদের অভিযোগ প্রদানে উদ্বুদ্ধ করতে সভা সেমিনার পরিচালনা করছি। ধীরে ধীরে ভোক্তারা সচেতন হচ্ছেন এবং অভিযোগ দায়ের করে সুফলও পাচ্ছেন। শুন্য পদে নিয়োগ এবং প্রয়োজনীয় পদে অনুমোদন ও নিয়োগ দেওয়া হলে আরো বেশী সেবা দেওয়া সম্ভব।
তিনি আরো জানান ২০১৭-১৮ অর্থবছরে সিলেট বিভাগীয় শহর,  ০৪ টি জেলা ও সকল উপজেলায়  ৩০০ টি বাজার তদারকি কার্যক্রম পরিচালনা করার লক্ষামাত্র নির্ধারন করা হয়েছে এবং ব্যবসায়ী ও ভোক্তা সাধারণের অংশগ্রহণে ৪টি গণশুনানীর আয়োজনের পরিকল্পনা রয়েছে।