গ্রীসে গাড়ি উল্টে বিয়ানীবাজারের যুবক নিহত

কাজ শেষে ফিরার পথে গ্রীসে সড়ক দুর্ঘটনায় বিয়ানীবাজার পৌরসভার নিদনপুর এলাকার যুবক মৃত্যুর খবর পাওয়া গেছে। শনিবার দুপুরে গ্রীসে একটি চলন্ত মাইক্রো উল্টে শিহাব নামের ওই যুবকের মৃত্যু হয়। শিহাব বিয়ানীবাজার পৌরসভার নিদনপুর গ্রামের নিছফর মিয়ার ছেলে।

গ্রীসের লাপ্পা গ্রামে কর্মরত সজিব ও লোকমান নামের দু’জন বাংলাদেশী যুবক জানান, শনিবার স্থানীয় সময় সোয়া ১টার দিকে লাপ্পা নামক গ্রামে কাজ শেষে বাসায় ফেরার সময় এয়ারপোর্ট-লাপ্পা সড়কে এই দূর্ঘটনাটি ঘটেছে । নিহত শিহাবের সাথে থাকা শ্রমিকদের উদ্ধৃতি দিয়ে সজিব বলেন, শিহাবরা যে গাড়িতে ছিলেন সেই গাড়ির চালক ধারণ ক্ষমতার চেয়ে দ্বিগুণ যাত্রী নিয়ে বেপরোয়া গতিতে চলছিলেন ।আনুমানিক ৫ মিনিট চলার পর একটি ত্রিমুহনী অতিক্রম করাকালে গাড়িটি নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে উল্টে যায় । এতে কয়েকজন শ্রমিক ছিটকে পড়ে আহত হন । পুলিশ শিহাবকে গুরুতর আহত অবস্থায় হাসপাতালে নিয়ে গেলে সেখানকার কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন ।

সর্বশেষ তথ্যমতে, শিহাবের লাশ এখন পুলিশ হেফাজতে রয়েছে এবং এ ঘটনায় মৃতের পক্ষে তার মাস্তুরা (মালিক) মামলা দায়েরের প্রস্তুতি নিচ্ছেন । এদিকে মর্মান্তিক এ সড়ক দূর্ঘটনার খবর জানাজানি হওয়ার পর লাপ্পা, মানোলুদা সহ কয়েকটি গ্রামের প্রবাসী বাংলাদেশীদের মধ্যে শোকের ছায়া নেমেছে ।প্রবাসীরা এ ঘটনাকে ‘হত্যা’ হিসেবে আখ্যা দিচ্ছেন এবং এর সুষ্ঠু বিচার ও ক্ষতিপূরণ আদায়ে গ্রীস সরকারের আন্তরিক উদ্যোগ কামনা করছেন ।