বিয়ানীবাজারে পবিত্র আশুরার গুরুত্ব ও তাৎপর্য শীর্ষক আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত

বিজ্ঞপ্তি

বিয়ানীবাজারে পবিত্র আশুরার গুরুত্ব ও তাৎপর্য শীর্ষক আলোচনা সভা ও শোহাদায়ে কারবালা মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়েছে। মঙ্গলবার (১০ সেপ্টেম্বর) দুপুর ২টায় পৌরশহরের একটি অভিজাত রেস্টুরেন্টের হলরুমে এ আলোচনা সভার আয়োজন করে বিয়ানীবাজার মুসলিম সাহিত্য পরিষদ।

বিয়ানীবাজার মুসলিম সাহিত্য পরিষদের সভাপতি মাওলানা কামাল হুসেন আল মাথহুরি’র সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি ছিলেন বিয়ানীবাজার পৌরসভার মেয়র মোঃ আব্দুস শুকুর এবং প্রধান বক্তা ছিলেন মাথিউরা সিনিয়র ফাযিল মাদ্রসার শিক্ষক মাওলানা নুরুল ইসলাম জিহাদী।জাহিদুর রহমান জাহিদ ও মাওলানা নাসির উদ্দিনের যৌথ সঞ্চালনায় সভায় বক্তব্য রাখেন- লতিফিয়া কারী সোসাইটি বিয়ানীবাজারের সভাপতি কারী জুবায়ের আহমদ, বিয়ানীবাজার সোস্যাল অর্গানাইজেশনের সভাপতি শাহাব উদ্দিন মৌলা, বিয়ানীবাজার জার্নালিস্ট এসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক শাবুল আহমদ, গোলাবশাহ হাফিজিয়া মাদরাসার মুহতামিম হাঃ মাওলানা নাজিম উদ্দিন, সহ মুহতামিম হাঃ মাওলানা মাশুক আহমদ, প্রাথমিক সহকারী শিক্ষক সমিতির সাংগঠনিক সম্পাদক মাওলানা রুহুল আমিন, মাওলানা ছালেহ আহমদ কবির, হাঃ মাওলানা মিনহাজুদ্দিন প্রমুখ।এসময় মুসলিম সাহিত্য পরিষদে্র পক্ষে বক্তব্য রাখেন পরিষদের সহ সভাপতি লুৎফুল হক চৌধুরী, সাংগঠনিক সম্পাদক মোঃ আব্দুল খালিক খালেদ, সহ সাংগঠনিক সম্পাদক কামরান হোসেন, সাহিত্য বিষয়ক সম্পাদক আহমদ রেজা চৌধুরী, ছাত্র বিষয়ক সম্পাদক সুয়াইব আহমদ।

আলোচনা সভায় বক্তাগণ তাদের বক্তব্যে আশুরার তাৎপর্য ও গুরুত্ব তুলে ধরেন এবং সর্বশেষ কারবালা শোহাদায়ে কেরাম তথা আহলে বায়তের সেই হৃদয় বিদারক ঘটনাবলী আলোচনার মাধ্যমে মুসলিম সমাজে হোসাইনি চেতনা উজ্জীবিত রাখতে এবং রাসুল (সাঃ) এর আদর্শকে সর্বস্তরে প্রতিষ্ঠিত করার প্রতি জোর তাগিদসহ উদাত্ত আহবান জানান।সবশেষে মাওলানা নুরুল ইসলাম জিহাদী মিলাদ শরীফ পাঠ করেন এবং পরিষদের সভাপতি মাওলানা মোঃ কামাল হোসেন আল মাথহুরী সমাপনী বক্তব্য ও দোয়ার মাধ্য দিয়ে মাহফিলের সমাপ্ত করা হয়।