গোলাপগঞ্জে ছেলের দায়ের কোপে আহত মায়ের মৃত্যু

বিয়ানীবাজারকন্ঠ ডেস্ক

গত ২৭ মার্চ সিলেটের গোলাপগঞ্জে ছেলের দায়ের কোপে প্রাণ হারান ঢাকাদক্ষিণ ইউনিয়নের সুনামপুর গ্রামের আবদুর করিম খান ওরফে ঠাকুর মনাই (৬০)। এ হামলায় গুরুতর আহত হন হামলাকারী যুবকের মা মিনারা বেগম।

রবিবার অসুস্থ অবস্থায় তিনিও মারা গেছেন। গোলাপগঞ্জ থানার ওসি মিজানুর রহমান এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

জানা গেছে, শুক্রবার (২৭ মার্চ) সকালে পাষন্ড ছেলে রাহেল আহমদ বাড়ির সামনের কয়েকটি গাছ কাটতে যায়। এসময় বাবা আবদুল করিম খান ও মা মিনারা বেগম তাকে গাছ কাটতে নিষেধ করেন। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে সে বাবা-মাকে কোদাল ও দা দিয়ে কুপিয়ে গুরুতর আহত করে। আশঙ্কাজনক অবস্থায় উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেওয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক আবদুল করিম খানকে মৃত ঘোষণা এবং মিনারা বেগমকে ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করেন।

ওসমানী হাসপাতাল থেকে মোটামুটি সুস্থ হয়ে গত ১ এপ্রিল বাড়িতে যান মিনারা বেগম। হঠাৎ আজ রবিবার তার শরীর খারাপ হলে তাকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেয়া হয়। সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসকরা তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

এ ঘটনার পরে পুত্র রাহেল আহমদকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। এছাড়া এ ঘটনায় দেলোয়ার হোসেন বাদি হয়ে গোলাপগঞ্জ থানায় একটি মামলা দায়ের করেছেন।